HomeBlogs

  ভুতের গল্প (Part-3)
2021-02-26
Apk

Download ভুতের গল্প (Part-3)


Additional Information

Scroll Down And Click To Continue Button For Complete This Task



সেন্স ফিরতেই নিজেকে অন্ধকার কুটিরে আবিষ্কার করলাম। আশেপাশে তাকাতেই ভয়ে চিৎকার দিয়ে উঠলাম কারণ পুরো রুম জুড়ে মানুষ পশু দের কঙ্গাল। কিন্তু আমি এখানে কি করে এলাম? আমি তো টিউশনি করে বাসায় ফিরছিলাম। তাহলে এখানে আসলাম কি করে? ইশশশশশ কি বিস্রি গন্ধ ইয়ায়ায়াক। বুঝতে বাকি নেই এগুলা মানুষ প্রানীর পচা মাংসের দুর্গন্ধ। কিন্তু এদের এখানে কে মেরেছে? আর আমাকেই বা এখানে কে আ

নলো?

সব টাই মিশুর মাথার উপর দিয়ে যাচ্ছে। হঠাৎ পরিবেশ কেমন ঠান্ডা হয়ে গেলো। মনের মধ্যে অজানা ভয় দোলা দিলো। ভয়ে রিতিমতো কাপাকাপি শুরু করে দিয়েছে সামনের অবয়ক টাকে দেখে। কি বিস্রি চেহারা…চেহারা টা দেখেই আমি বমি করে দিলাম। মনে হচ্ছে ভেতরের নারীভুঁড়ি সব বেরিয়ে আসবে। অবয়ক টি ভয়ংকর এক হাসি দিয়ে বলে,

– খুব এসেছিস এখানের রহস্য বের করতে? কি ভেবেছিস তুই আমরা কেউ কিছুই বুঝতে পারবো না? আজ আমরা সবাই মিলে তোকে মেরেই ছাড়বো।

বলতেই আরও ৬জন হাজির হয় আমার চারপাশে। তাদের একেকজনের চেহারা আরও ভয়ংকর এবং বিস্রি । সেই মুহূর্তে কি করবো কিছুই বুঝতে পারছি না। তাই তাড়াতাড়ি দোয়া দুরুদ পড়লাম। সাথে সাথে সেখানেই আবার সেন্সলেস হয়ে পড়ে যাই।

চিৎকার দিয়ে ঘুম থেকে উঠলাম। আশেপাশে তাকিয়ে দেখি আমি আমার রুমেই আছি। তাড়াতাড়ি করে আলভি কে ডাকতে লাগলাম। আলভি আমার বেস্টফ্রেন্ড। ওর সাথেই আমি এই বাংলো তে থাকি। বাংলো টি আমার বাবা কিনেছেন। অদ্ভুত কথা হলো বাবা বাংলো টিতেই নাকি নিখোঁজ হয় কিন্তু কিভাবে সেটা কেউ জানেনা। পুলিশ বাবাকে অনেক খোঁজার চেষ্টা করেছে কিন্তু পায়নি বাংলো টির মধ্যে। পরে বাংলোর পাশের পুকুরে বাবার নিস্তেজ দেহ টা পাওয়া যায়। বাবা ছাড়া আমার পৃথিবীতে আপন কেউ ছিলো না। আজ সেই বাবাও আমায় পর করে দিয়ে চলে যায় পরাপারে। কিন্তু মাথায় ঠিকই রহস্যের ভূত চেপে বসে আছে। তাইতো পুনোরায় আমি আমার বেস্ট ফ্রেন্ডকে নিয়ে এই বাংলো তে উঠেছি ১সপ্তাহ হলো। আমরা দুইজনই টিউশনি করি খাওয়ার খরচ চালাতে।

আলভি দ্রুত দৌড়ে আমার কাছে আসে। আলভি- কি হলো মিশু এভাবে ডাকছিস কেন? মিশু- কাল তুই টিউশিনি তে যাস নি? আলভি- আমি তো গিয়েছিলাম তুই তো যাসনি বাড়িতেই ছিলি। মিশু- মানে কি আমি তো কাল তিয়াস(স্টুডেন্ট) কে পড়িয়ে এসেছি। আলভি- না তুই যাসনি। তোর ফোন পাচ্ছিলো না বলে তিয়াসের মা আমায় কল দিয়েছিলো এবং জিজ্ঞেস করেছিলো তুই কেন তিয়াস কে পড়াতে যাসনি। আমি তাকে বলেছি যে তুই অসুস্থ তাই যেতে পারিস নি। মিশু- ওয়ায়ায়াট! বাট দোস্ত বিশ্বাস কর আমি কাল সত্যি তিয়াসদের বাড়ি গিয়েছিলাম আর… আলভি- আর কি? মিশু- না কিছু না আগে এটা বল কাল তুই রাত কয়টায় বাড়ি ফিরেছিলি। আলভি- ওহ কাল তো ১২:৩০ মিনিটে বাসায় এসেছি। আসলে হয়েছে কি কাল রাতেই হঠাৎ ঢাকা থেকে এক ফ্রেন্ড এসেছিলো তার সাথে কথা বলে বলেই সময় পার হয়ে গিয়েছিলো। মিশু- ওহ। আলভি- বাড়ি এসে তোকে খাবারের জন্য এসেও ডেকে গেছিলাম কিন্তু তুই রুমে কেমন হাসাহাসি করছিলি। বেশি জোরে ডাকলে তুই আমায় ধমক দিয়ে রুমে পাঠিয়ে দিয়েছিস। মিশু- কি বলছিস তুই এসব আমি কাল আমার রুমে হাসাহাসি করছিলাম?কখন আর কিভাবে সম্ভব আমার তো কাল রাতের কোনো কথা মনেই নেই(অবাক হয়ে) আলভি- তুই এসব কি যা তা বলছিস? মিশু- আমি যাতা বলছি না আলভি বোঝার চেষ্টা কর। কাল রাত থেকে আমার সাথে অনেক অদ্ভুত অদ্ভুত কাহীনি হচ্ছে কিন্তু কি তা আমি একদমই বুঝতে পারছি না। আলভি- সব খুলে বল আমায়। তারপর মিশু আলভি কে সব খুলে বললো তার সাথে যা যা হয়েছে। আলভি তো এসব শুনে শকড। আলভি- এগুলা কিভাবে সম্ভব? কিসের রহস্যের কথা বললো ওই পিশাচ টা? মিশু- বুঝতে পারছি না। তবে আমার কি মনে হয় জানিস? তুই আসাতেই হয়তো পরিবেশ স্বাভাবিক হয়ে গেছিলো আর আমি কালকের মতো বেচে গেছিলাম। নইলে আমার বাচা সত্যিই অসম্ভব হয়ে দাঁড়িয়েছিলো। আলভি- হুম হয়তো। কিন্তু সেই কঙ্গাল ভর্তি ঘরটা কোথায় ছিলো মনে আছে তোর? মিশু কিছুক্ষণ ভেবে বললো, মিশু- না রে মনে করতে পারছি না। আলভি- আচ্ছা কোনো ব্যাপার না এখন আয় খেয়ে নে নইলে অসুস্থ হয়ে পরবি। মিশু- হুম তাই ভালো হবে। তারপর মিশু ফ্রেশ হয়ে এসে আলভির সাথে একসাথে খেয়ে নেয়। খাওয়া শেষ হতেই বুয়ার সাথে টুকটাক কাজ করতে লাগে দুজনে। মিশু আর আলভির এমন বন্ধুত্বপূর্ণ আচরণে বুয়া অনেক টাই সন্তুষ্ট। কাজ শেষে মিশু নিজের রুমে চলে আসে। ভাবতে লাগে কাল রাতের কথা। কালকে আমি কোথায় ছিলাম? ওই কুটির টা কি এই বাংলোতেই? না অন্য কোথাও। আর ওই অবয়ক গুলা কিসের রহস্যের কথা বললো? নাহ এই পুরো বাড়ি সম্পর্কে সব আমায় জানতেই হবে। এই বাড়িতে এমন কি রহস্য আছে যার জন্য আমার বাবা অকালে প্রাণ হারালো
Please Wait 30 Sec For Continue

You may also like

Photo Mix2

 কিভাবে Waphosts.com এ সাইট খুলবেন?

  ➡️ Blogs


wp untitled 32488

 আপনারাও পড়ে ভয় পাবেন। আমার সাথে ঘটে যাওঢ়া ঘটনা।

  ➡️ Blogs


beautiful island 240x320

 নিয়ে নিন Https://Wapone.Cf এই সাইটের থিম।

  ➡️ Blogs


beautiful island 240x320  VLX894wMrsiu

 কবিতা চোরপুরুষ

  ➡️ Blogs


beautiful island 240x320  IV5rZDNuP2G0

 সততার কাজ করলে উপকার কি?

  ➡️ Blogs


2 Comments To “ভুতের গল্প (Part-3)”

  1. ছুট ছুট ছেলে মেয়ে প্রেমে পড়েছে
    তাড়া আবার গূরতে যেন পার্কে গিয়েছে
    কে দেখেছে কে দেখেছে টিচার দেখেছে
    এবার বলো টিচার কেন পার্কে গিয়েছে

  2. Md Habib Xy

    Nice Next Part Taratari Chai

Make A Comment

Download Your Favorite Games And Apps Free
© 2020 - 2022 Mload.Xyz